The personal story of Rudro M al-Amin
(Episode-03)
“Blogger and Blogging”

Readers,
For bloggers in my country, blogging on blogs is risky. Because, according to this country, there is a law called cybercrime. Many who use social media, have no idea about this law. The law is very

hard.I know,
Maybe, suddenly one day, I could be in danger. Because, my blogging, many are not easy to follow.I do not spy, against the state. Or against anyone, I’m not blogging about revenge. And don’t even chat. Because, they are covered by cybercrime.

Some time ago, I was going to be a cybercrime case. Then I went door to door with member of parliament and many people.But I know it. It takes senior government officials permission to set up a case against bloggers. Because, bloggers have fans all over the world. They are employed in different occupations. And they are connected to each other all the time.Besides,

the media, the people of the press, the bloggers keep an eye. In a word, the blogger is in the government watchdog. Because bloggers can also endanger the government.

And I, since the opposition party guy. So, before blogging, I always have to think about law.And sometimes, I get advice from my own Lawyer.(continue) December 31.2019

রুদ্র ম আল-আমিন এর পারসোনাল গল্প
(পর্ব -03)
“ব্লগার ও ব্লগিং”

পাঠকগণ,
আমার দেশে ব্লগারদের জন্য,ব্লগে ব্লগিং করা রিস্কি। কারন,এই দেশের ল-মোতাবেক, সাইবার ক্রাইম নামে, একটি আইন আছে। সোস্যাল মিডিয়া যাহারা ইউজ করে, তাহাদের অনেকেরই, এই ল- সম্পর্কে ধারনা নাই। আইনটি খুবই হার্ড।

আমি জানি,
হয়তো, হঠাৎ একদিন, আমি বিপদে পরতে পারি। কারন, অামার ব্লগিং, অনেকেই সহজ ভাবে মানতে পারে না।আমি রাষ্ট্রের বিরুদ্ধে, গুপ্তচরবৃতি করি না। কিম্বা কারো বিরুদ্ধে, প্রতিহিংসা পরায়ণ হয়ে ব্লগিং করছি না। এবং চ্যাটিংও করি না। কারন, এগুলো সাইবার ক্রাইম, এর আওতায় পরে।

আমি কিছুদিন আগেও, সাইবার ক্রাইম মামলার আসামী হতে যাচ্ছিলাম।তখুন পার্লামেন্ট সদস্য এবং অনেক ব্যাক্তির দ্বারে দ্বারে ঘুরেছি।কিন্ত আমার ইহা জানা আছে।যে ব্লগারদের বিরুদ্ধে কেস স্টাট করতে, উর্ধতন সরকারী কর্মকর্তার পারমিশন লাগে।কারন, ব্লগারদের পুরো ওয়ার্ল্ডে ভক্ত থাকে। তারা বিভিন্নজন বিভিন্ন পেশায় নিয়োজিত। এবং এরা একেঅপরের সাথে অলটাইম কানেকটেড ।

এছাড়া মিডিয়া, প্রেস এর লোকজন, ব্লগারদেরকে নজরে রাখে। এককথায় বলা যায়,ব্লগার সরকারের নজরতালিকায়। কারন ব্লগার, সরকারকেও বিপদে ফেলতে পারে।

আর আমি,যেহেতু অপজিশন পার্টির লোক। তাই আমাকে, ব্লগিং এর পূর্বে, ল- এর ব্যাপারটি সবসময় ভাবতে হয়।

এবং আমি মাঝে মাঝে, আমার নিজস্ব ল-ইয়ারের পরামর্শ গ্রহন করে থাকি।(চলবে)December 31.2019